কেশবপুরে ৬ শিক্ষার্থীকে নগ্ন করলেন প্রধান শিক্ষক। অপরাধ।

যশোরে কেশবপুরে সানতলা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ফুটবল খেলতে চাওয়ায় ঐ স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক রবীন্দ্রনাথ সরকারের বিরুদ্ধে শ্রেণীকক্ষে ৬ শিক্ষার্থীকে নগ্ন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

রোববার এই ঘটনা ঘটে। সোমবার ঐ ৬ শিক্ষার্থী স্কুলে না যেতে চাইলে এই ঘটনা ফাঁস হয়।

অভিভাবকরা ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি লক্ষণ কুমার হালদারের কাছে এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার দাবি করে ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দেন।

পরিস্থিতি মোকাবেলায় সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা প্রভাত কুমার রায় মঙ্গলবার সে স্কুলে পরিদর্শন করে ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় সে শিক্ষককে আড়-য়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বদলি করেন। শিক্ষক রবীন্দ্রনাথ সরকার জানান, এই বিষয়ে তার কিছু বলার নেই।

অভিভাবক সদস্য জামাল উদ্দিন জানান, ৫ম শ্রেণীর শিক্ষার্থীরা ফুটবল খেলার জন্যে প্রধান শিক্ষকের কাছে বল আনতে গেলে তিনি তাদের বল না দিয়ে শিশু শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের বল খেলতে দেন। এরপরও তারা বল খেলতে চাইলে সে শিক্ষক তাদের একটি শ্রেণীকক্ষে ডেকে প্যান্ট খুলে নগ্ন হতে বলেন।

শিক্ষার্থীরা প্রথমে নগ্ন হতে না চাইলেও শিক্ষকের হুকুমে বাধ্য হয় নগ্ন হতে। শিশু শ্রেণীর এক শিক্ষার্থী জানালার ফাঁক দিয়ে এই ঘটনা দেখে জানায়। এতে অভিভাবকরা ক্ষুব্ধ হয়ে শিক্ষার্থীদের স্কুলে যাওয়া বন্ধ করে দেন।

অভিভাবক হাসান আলী জানান, ঐ প্রধান শিক্ষক কোন শিক্ষার্থীকে স্কুলের টয়লেট ব্যবহার করতে দেন না। কারো বাথরুমে যাওয়ার প্রয়োজন হলে তাকে সরাসরি বাড়ি পাঠিয়ে দেওয়া হতো।

সূত্র-যুগান্তর।

Comments

comments